বাংলা সিরিয়াল

“লম্বা হতে হবে, সুদর্শন হতে হবে, কালো হওয়া চলবে না” – তাঁর জীবন সঙ্গী হতে হলে কি কি গুন থাকতে হবে তার ফিরিস্তি দিলেন টেলি অভিনেত্রী শ্রীপর্ণা রায়

শ্রীপর্ণা রায়, ছোট পর্দার দৌলতে এই অভিনেত্রীকে আমরা বেশ ভালো মতোই চিনি। শুধু তাই নয় এনার অভিনয়েও মুগ্ধ করেছে বহু বাঙালি দর্শক। এবার এই অভিনেত্রীর মনের মানুষ কেমন হতে হবে সেই নিয়ে ফিরিস্তি দিলেন অভিনেত্রী নিজেই। “কড়ি খেলা” র পারমিতা দিদি নাম্বার ওয়ান এর মঞ্চে উপস্থিত করলেন সেই লম্বা লিস্ট।

তাঁর মনের মানুষের চেহারা কেমন হবে সেই নিয়ে কোন প্রকার রাখঢাক না করে ক্যামেরার সামনে মুখ খুললেন অভিনেত্রী। বললেন, “লম্বা হতে হবে। সুদর্শন হতে হবে। কালো হওয়া চলবে না।” কি ভাবছেন মনের মানুষের তালিকার ইতি শুধু এখানেই। আজ্ঞে না। অভিনেত্রী বলেন তাঁর জীবন সঙ্গীর একজন পরিণতমনস্ক ব্যক্তিত্ব থাকতে হবে। সেই মানুষটির পরামর্শে যেন অভিনেত্রীর জীবন চলার পথ মসৃণ হয়। কিন্তু যতই প্রেম-ভালোবাসা থাকুক না কেন জীবনসঙ্গীন নাক ডাকার স্বভাব একদম বরদাস্ত করবেন না অভিনেত্রী। আর তাঁর এই কথা শুনে হেসে গড়াগড়ি খেয়েছে দিদি নাম্বার ওয়ান এর সঞ্চারিকা রচনা বন্দ্যোপাধ্যায়।

প্রসঙ্গত ছেলেবেলাতেই মা হারা হয়েছেন শ্রীপর্ণা। বাবার কাছেই বড় হয়ে উঠেছে একমাত্র মেয়ে। তাই নিউ ঠিক করে রেখেছে বাবাকে সে কাজ ছাড়া করতে নারাজ। অভিনেত্রী স্পষ্ট জানান, “আমি সিদ্ধান্ত নিয়ে ফেলেছি। যে ছেলে আমাকে বিয়ে করতে রাজি হবে, তার শর্ত হচ্ছে এটাই যে তাকে আমার বাড়িতে থাকতে হবে।”

প্রসঙ্গত জি বাংলার জনপ্রিয় ধারাবাহিক “কড়ি খেলা”র সুবাদে বেশ জনপ্রিয়তা অর্জন করেছেন অভিনেত্রী শ্রীপর্ণা রায়। কিন্তু বেশ কয়েকদিন আগেই ধারাবাহিক শেষ হয়ে যাবে নতুন কোন ধারাবাহিকের প্রজেক্টে দেখা যায়নি অভিনেত্রীকে। সুদীপার রান্নাঘরে কয়েক দিনের জন্য ছিলেন অভিনেত্রী এছাড়া অনেক সিনেমাতে দেখা গিয়েছিল তাঁকে। শুধু নিজের ক্যারিয়ারে নন সোশ্যাল মিডিয়াতেও বেশ সাফল্য অর্জন করেছেন অভিনেত্রী। তাঁর ফলোয়ারের সংখ্যা প্রায় ৪০ হাজার ছুই ছুই। নিজের সোশ্যাল মিডিয়া হ্যান্ডেল থেকে প্রায়শই নিজের জীবনের বেশ খানিকটা অংশ ভাগ করে নেন অভিনেত্রী তাঁর অনুরাগীদের সাথে।

 

View this post on Instagram

 

A post shared by mithai prem (@mithailoves)

Related Articles

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।