বাংলা সিরিয়াল

পুজো কার্নিভালে সকলের সামনে মমতা জড়িয়ে ধরলেন ঐন্দ্রিলাকে! উপস্থিত ছিলেন মিঠাইও, হলুদ শাড়িতে একেবারে লক্ষ্মী প্রতিমা তিনি, জমে উঠেছিল আজকের পুজো কার্নিভাল

সবে গেল বাঙালির সবথেকে বড় উৎসব দুর্গা উৎসবের বিজয় দশমী। প্রতিমা বিসর্জনের পরেও পুজো কার্নিভালে মেতে রয়েছে বাংলা বাঙালি। রেড রোডে আয়োজিত হয় এই পুজো কার্নিভাল। প্রচুর সাধারণ মানুষ উপস্থিত থাকে না দিন এই কার্নিভাল দেখতে। এদের সাথে উপস্থিত থাকেন বেশ কিছু রাজনৈতিক বিশিষ্ট মানুষ। আবার অন্যদিকে উপস্থিত উপস্থিত ছিলেন অভিনয় জগতের তাবড় তাবড় অভিনেতা-অভিনেত্রীরাও। এর আগেও কলকাতায় পূজো কার্নিভাল হয়েছে। কিন্তু ইউনেস্কোর সম্মতি মেলার পর এই কার্নিভাল অনেক বেশি জাকজমকপূর্ণ হয়ে উঠেছে। এই অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন, মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় সহ উত্তর কলকাতা, দক্ষিণ কলকাতা এবং সল্টলেকের মোট ৯৫ টি দুর্গাপুজো কমিটি। বিভিন্ন পুজো কমিটি নিজেদের থিমের সঙ্গে সাযুজ্য রেখে ট্যাবলো তৈরি করে।

এত বড় অনুষ্ঠানের মধ্যে তারকা গোষ্ঠী আলোকিত করে রেড রোডের পুজো কার্নিভাল কে। এক ঝাঁক চাঁদেরহাট দেখতে পাওয়া যায় এদিন। জুন মালিয়া, অদিতি মুন্সি, রাজ চক্রবর্তী থেকে সায়ন্তিকা, তৃণা, ভাস্বর, সুভদ্রা,রিজওয়ান রব্বানি শেখ,ঋত্বিকা সেন, ভরত কলরা আলোকিত করেছিলেন। কিন্তু সব তারকাদের ছাপে গেল মিঠাই এর মিষ্টত্ব। মাথায় সিঁদুর নিয়ে হলুদ শাড়িতে খোলা চুলে একেবারে লক্ষ্মী প্রতিমা তিনি। সিঁদুর থেকে এটুকু স্পষ্ট যে একেবারে শুটিং সেট থেকে সোজা পুজো কার্নিভালে এসে উপস্থিত হয়েছেন অভিনেত্রী। যদিও এটা আমরা সবাই জানি যে অভিনেত্রী সৌমীতৃষার সরাসরি কোন যোগ নেই রাজনীতির সাথে।

আমরা সবাই খুব ভালো মতোই জানি যে রাজ্যের শাসকদলের নেত্রী তথা রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ছোট পর্দার তারকা গোষ্ঠীকে বেশ সম্মানের চোখে দেখেন। প্রত্যেকজন অভিনেতা অভিনেত্রীদেরকে তিনি সাদরে আহ্বান জানিয়েছেন পুজো কার্নিভালে। তৃণা থেকে সৌমীতৃষা সকলেই মুখ্যমন্ত্রী চরণ স্পর্শ করে আশীর্বাদ নিলেন। অন্যদিকে এদিন শ্রীভূমি স্পোর্টিংয়ের পুজোর মুখ হিসাবে নৃত্য পরিবেশনা করলেন টলিউডের বড় পর্দার দুই জনপ্রিয় অভিনেতা অভিনেত্রী অঙ্কুশ-ঐন্দ্রিলা। নিজেদের পারফরমেন্স শেষ করা মাত্রই সোজা মঞ্চে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের কাছে উঠে যান দুজনেই। মুখ্যমন্ত্রীও ঠিক তেমনি দুহাতে জড়িয়ে বুকে টেনে নিলেন ঐন্দ্রিলা কে। লাল লেহেঙ্গায় ভারী মিষ্টি লাগছিল অভিনেত্রীকে। মুখ্যমন্ত্রী নিজেও হাত গুটিয়ে বসে ছিলেন না। কখনো কাসর ঘন্টা তো কখনো আদিবাসীদের সাথে নাচে মেতে উঠেছিলেন তিনি। তাঁর সঙ্গে সঙ্গত দিয়েছেন অভিনেত্রীরাও।

Related Articles

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।