বাংলা সিরিয়াল

“কত বড় বড় মনোহরা, বাংলার মিয়া খলিফা” – অভিনেত্রী সৌমির পুরনো এক ফটো নিয়ে শুরু হল নোংরা সমালোচনা! নেটিজেনদের এই নোংরা সমালোচনায় অবাক সকলে

অভিনয় জগতকে নিয়ে মানুষের সমালোচনা চলে আসছে অভিনয়ে জগতের শুরু থেকেই। বড় পর্দার অভিনেতা অভিনেত্রী থেকে ছোট পর্দার অভিনেতা – অভিনেত্রী কাউকেই ছেড়ে কথা বলেন না সমাজ। বিশেষত তাঁদের চরিত্র নিয়ে টানা হেঁচড়া করা মানুষের প্রত্যেকদিনকার একটা কাজ হয়ে দাঁড়িয়েছে। শুধু কাজের জগৎ নয় তাঁদের ব্যক্তিগত জীবনের সিদ্ধান্তগুলি নিয়েও বেশ ভালই সমালোচনা হয় সোশ্যাল মিডিয়ায়।

তবে বড় পর্দার অভিনেতা অভিনেত্রীরা থাকে নিজেদের জগতে ওরা এসব কোনো কিছুকেই বিশেষ পাত্তা দেন না। কিন্তু এবার নোংরা সমালোচনা শুরু হলো ছোট পর্দার এক জনপ্রিয় অভিনেত্রী সৌমিতৃষার এক ছবিকে ঘিরে। বর্তমানে টেলিভিশন জগতের জনপ্রিয়তায় শীর্ষ স্থানাধিকারী তিনি। জি বাংলার জনপ্রিয় ধারাবাহিক মিঠাইয়ের মুখ্য চরিত্র দেখতে পাওয়া যাচ্ছে এই অভিনেত্রীকে। নানা ধরনের সমালোচনার সাথে এখন অভিনেত্রীর শারীরিক খুঁটিনাটি বিষয় নিয়েও নোংরা সমালোচনা হচ্ছে সোশ্যাল মিডিয়ায়।

সাধারণত অভিনেতা – অভিনেত্রীদের ধারাবাহিক নিয়ে সমালোচনা খুবই কমন বিষয়। প্রত্যেকটা অভিনেতা-অভিনেত্রীর নিজস্ব ফ্যান বেস থাকে আর সেই ফ্যান বেসই একে অপরের মধ্যে সমস্যা সৃষ্টি করে। যদিও সোশ্যাল মিডিয়াতে সবথেকে বেশি দেখা যায় মিঠাই আর পিহু ভক্তদের মধ্যে সমালোচনা। একে অপরকে যেন সহ্যই করতে পারেন না এই ভক্তকূল। আবার এমনও হয় যে মিঠাই যেহেতু জি বাংলার ধারাবাহিক সেহেতু স্টার জলসার অন্যান্য ধারাবাহিকের অভিনেত্রীদের ভক্তরা জি বাংলার অভিনেত্রীদেরকে নিয়ে ট্রল করেন। সেসব ধারাবাহিক জগতে খুবই স্বাভাবিক বিষয়। কিন্তু এবার যে নোংরা সমালোচনা শুরু হয়েছে তা মোটেই কাম্য নয়। একদল সমালোচক নোংরা সমালোচনা করা শুরু করেছেন সকলের প্রিয় অভিনেত্রী সৌমিতৃষা ওরফে মিঠাই কে নিয়ে। তাও আবার অভিনেত্রীর শারীরিক বিষয়কে নিয়ে সমালোচনা হচ্ছে এখানে।

 

View this post on Instagram

 

A post shared by SOUMITRISHA (@soumitrishaofficial)

আসলে ব্যাপারটা হল সম্প্রতি সোশ্যাল মিডিয়াতে অভিনেত্রীর একটি ছবি পোস্ট করা হয়েছে। যেখানে অভিনেত্রীর পরনে রয়েছে একটি শর্ট টাইট টপ আর ফুলপ্যান্ট। খুঁজে খুঁজে এমন একটি ছবি বার করা হয়েছে যেখানে অভিনেত্রীর বক্ষযুগল বেশ পরিণত বলেই মনে হচ্ছে। আর সেই ছবি পোস্ট করে সেখানে অভিনেত্রীর বক্ষযুগল নিয়ে নোংরা ভাবে মন্তব্য করা হচ্ছে। আর খুব অদ্ভুতভাবেই সেইসব মন্তব্য আসছে মহিলাদের তরফ থেকে। এ ধরনের নোংরা মন্তব্য কোন মেয়ে অন্য আরেকজন মেয়ের জন্য করতে পারেন এটা খুবই অদ্ভুত।

এই ফটো শেয়ার করে একজন মন্তব্য করেছেন, “ফোকাসড সো কল্ড মিয়া খলিফা দি”, “অনেক বড় পৃথিবী”, “অনেক বড় মনের মানুষ”, “কত বড় বড় মনোহরা” ইত্যাদি। এছাড়া এমন আরো কমেন্ট দেখতে পাওয়া গিয়েছে এই ফটো নিচে। পুরো প্রতিবেদনটি পড়ে আশা করি বুঝতে পারছেন যে কি ধরনের নোংরা মন্তব্য করা হচ্ছে অভিনেত্রীর বিরুদ্ধে। গতকাল সন্ধ্যেবেলাতেই সৃজনার কবিতার বই প্রকাশ হওয়া নিয়ে বেশ সমালোচনা হয়েছিল সোশ্যাল মিডিয়াতে তারপর এই রাত্রিবেলা এ ধরনের ফটো পোস্ট করে এমন সব মন্তব্য করা হচ্ছে। কিন্তু যে কোন মেয়ের শারীরিক অংশকে নিয়ে সমালোচনা করা কি কাম্য? যদিও মিঠাই ভক্তদের কাছ থেকে এখনো পর্যন্ত কোনো প্রতিক্রিয়া পাওয়া যায়নি। তবুও এই ধরনের সমালোচনা বন্ধ হওয়া প্রয়োজন।

Related Articles

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।