বাংলা সিরিয়াল

“সেই এক চোখের জল ফেলতে ফেলতে বিয়ে করছে নায়িকা” – ধারাবাহিক শুরু হতে না হতেই চলে এসেছে নায়ক নায়িকার বিয়ের প্রমো! এসব দেখতে দেখতে বিরক্ত হয়ে উঠেছেন দর্শক

সম্প্রতি শুরু হয়েছে “হরগৌরী পাইস হোটেল”। যীশু সেনগুপ্তের প্রোডাকশন হাউস থেকে আসা এই ধারাবাহিক নিয়ে দর্শকের চাহিদা ছিল বেশ খানিকটা। দর্শক ভেবেছিলেন যীশু যেহেতু নিজে একজন বড় পর্দার অভিনেতা তাই তিনি হয়তো বুঝবেন ধারাবাহিকের ক্ষেত্রে দর্শকের চাহিদা ঠিক কোনখানে। দর্শক যে এই আর এই একঘেয়ে গল্প দেখতে পছন্দ করছে না সেটা বুঝতে পারবেন। কিন্তু তেমনটা ঠিক হলো না।

ঘুরিয়ে-পেঁচিয়ে সেই একই গল্প দেখানো হচ্ছে এই ধারাবাহিককেও। নতুন স্লটে শুরু হওয়া ধারাবাহিকের মধ্যে “নবাব নন্দিনী” ও “মাধবীলতা” তেও দেখানো হয়েছে এই একই কান্ড। নন্দিনী আর মাধবীলতার গল্পটা মানুষ জানতেই পারল না তার আগেই তাদের বিয়ের পর্ব দেখিয়ে দেওয়া হল। এক্ষেত্রে মানুষ চেয়েছিলেন যে ঐশানীর গল্পটা আরো বেশ কিছুদিন মানুষ দেখতে চেয়েছিলেন। আর এটা তো স্বাভাবিক যে নায়ক শংকরের সাথে তার বিয়ে হবেই তাহলে এত তাড়াহুড়ো কিসের? দর্শকের অনিচ্ছা থাকা সত্ত্বেও ধারাবাহিক নির্মাতারা কোন কথাই না শুনে এ ধারাবাহিক সেই একই কাণ্ড ঘটালেন।

ধারাবাহিক নির্মাতা থেকে চ্যানেলে এমনকি প্রোডাকশন হাউস কেউই দর্শকের মতামতে কোন ভ্রুক্ষেপ করলেন না। গল্পের লেখক বা লেখিকা সে অন্যান্য গল্পের ধারা রেখেই চটজলদি বিয়ে দিয়ে দিলেন নায়ক নায়িকার। এতে অন্যান্য গল্পের দর্শকরা তো সমালোচনা করলেন বরং জলসার নিজস্ব দর্শকেরাও সম্পূর্ণ বিষয়টি মোটেই পছন্দ করেন নি। আগামী সপ্তাহতেই আসতে চলেছে শংকর আর ঐশানীর বিবাহের পর্ব। ইতিমধ্যেই স্টার জলসা তাঁর সোশ্যাল মিডিয়া হ্যান্ডেল থেকে প্রমো শেয়ার করে দিয়েছে। আর এই প্রমো দেখেই বিরক্ত দর্শক।

সম্প্রতি সামনে আসা প্রমোতে দেখা যাচ্ছে যে শংকর আর ঐশানীর বিয়ে হচ্ছে। শংকর খুশি মনে বিয়ে করলেও নায়িকা অর্থাৎ ঐশানী কিন্তু বিয়েতে মোটেই রাজি নয়। সে ক্রমাগত কেঁদে যাচ্ছে সম্পূর্ণ বিয়ের মধ্যে। এরপর যখন সে শংকরের বাড়িতে আসবে তখন শঙ্করের মা তাকে দেখে একেবারে চমকে যাবে। আর জিজ্ঞাসা করবে তুমি কি অশিক্ষিত? তখন ঐশাণী বলবে আমি কলেজের ফাইনাল ইয়ারে পড়ি।

এটা শুনেই মাথা ঘুরে যাবে মিতালীর। কারণ দেওরের বউ যদি এত শিক্ষিত হয় তাহলে তার দাম কমে যাবে। আর সে যে দীর্ঘ বছর ধরে শ্বশুরবাড়িতে একা রাজত্ব করে এসেছে সেই ক্ষমতাও আর তার থাকবে না। এই প্রমো সামনে আসতেই বিরক্ত হয়েছে দর্শক। কারণ সবে মাত্র এক সপ্তাহ হয়েছে ধারাবাহিক টি শুরু হয়েছে আর এর মধ্যেই বিয়ে। এত জলদি বিয়ে করে শ্বশুর বাড়িতে এসে বড়জা এর সাথে সাংসারিক লড়াইয়ে মেতে উঠবে ঐশানী? এটাই দর্শক মোটেই পছন্দ করছেন না। এবার শুধু সময় বলবে যে কি কারণ দেখানো হবে শংকর আর ঐশনীর বিয়ের পিছনে।

 

View this post on Instagram

 

A post shared by Star Jalsha (@starjalsha)

Related Articles

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।