বাংলা সিরিয়াল

বাড়ির অমতে গিয়ে রাধিকার সিঁথিতে সিঁদুর পরিয়ে দিল পোখরাজ, ‘এক্কাদোক্কা’ ধারাবাহিকের বিশেষ পর্ব দেখে উৎসাহিত দর্শক

বাংলা বিনোদন জগতের অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ অংশ হলো ধারাবাহিক। একঘেয়ে জীবন থেকে মুক্তি পাওয়ার জন্য এই ধারাবাহিক গুলির জুড়ে মেলা ভার। বাড়ির মা কাকিমারা প্রত্যেকে সন্ধ্যে হলেই ধারাবাহিকগুলি দেখার জন্য টেলিভিশনের পর্দার সামনে বসে পড়েন। আর ধারাবাহিক গুলিও নিত্যনতুন গল্প নিয়ে প্রতিদিন হাজির হয় দর্শকদের মনোরঞ্জন করার জন্য। এই মুহূর্তে ধারাবাহিক জগতের অন্যতম জনপ্রিয় ধারাবাহিক হলো লিনা গাঙ্গুলীর লেখা স্টার জলসা এক্কা দোক্কা ধারাবাহিক। গত কয়েক মাস হল এই ধারাবাহিক স্টার জলসার পর্দায় থেকে শুরু হয়েছে। আর শুরুর সময় থেকেই দর্শকদের মধ্যে এই ধারাবাহিক নিয়ে আলাদা উন্মাদনা রয়েছে। এই ধারাবাহিকের দুই কেন্দ্রীয় চরিত্র রাধিকা এবং পোখরাজের ভূমিকা অভিনয় করছেন জনপ্রিয় টেলিভিশনের অভিনেত্রী সোনামণি সাহা এবং অভিনেতা সপ্তর্ষি মৌলিক। আগে সোনামণিকে আমরা স্টার জলসা এই মোহর ধারাবাহিকে দেখতে পেয়েছিলাম এবং সপ্তর্ষিকে দেখেছিলাম শ্রীময়ী ধারাবাহিকে।

ধারাবাহিকে এই দুই জনপ্রিয় অভিনেতা অভিনেত্রীকে একসাথে জুটি বাঁধতে দেখে দর্শক তো বেজায় খুশি। দুজনের কেমিস্ট্রি প্রথম দিন থেকে খুব সুন্দরভাবে ফুটে উঠেছে পর্দায়। আসলে ধারাবাহিকের প্রথমেই দেখানো হয় রাধিকা এবং পোখরাজের পরিবারের মধ্যে পারিবারিক শত্রুতা রয়েছে। খুনসুটি লেগেই থাকতো দুজনের মধ্যে, প্রায়শই ঝগড়া লেগে যেত। আর এই ঝগড়া করতে করতে কখন যে একে অপরকে মন দিয়ে দিয়েছে রাধিকা পোখরাজ তা তারা নিজেই বুঝতে পারেনি। আর দুজনের এই ব্যাপারটাই বেশ ইনজয় করত দর্শক। বর্তমানে যেমন ধারাবাহিকে দেখানো হচ্ছে বুবলুর পরিবর্তে পোখরাজের সাথে বিয়ের পিঁড়িতে বসে আছে রাধিকা। আসলে সবটাই পোখরাজ এবং বুবলুর প্ল্যান।

কিন্তু বিয়ের সমস্ত নিয়মকানুনের শেষে সিঁদুর দানের সময় পোখরাজের বাড়ির লোকজন উদগ্রী হয়ে পড়ে ঘোমটার আড়ালে থাকা বউয়ের মুখ দেখার জন্য। কিন্তু ঘোমটার আড়ালে যে রাধিকা বসে রয়েছে তা কারোর ধারণাই ছিল না। কিন্তু সকলের অমতে রাধিকার সিঁথিতে সিঁদুর পরিয়ে দেয় পোখরাজ। আর তারপর থেকেই দর্শকদের ভালোবাসা উপচে পড়ছে। প্রত্যেকে কমেন্ট করেছেন স্টার জলসার পক্ষ থেকে শেয়ার করা ভিডিওতে। আর সকলেই আগামী পর্বগুলোই দেখার জন্য আগ্রহে অপেক্ষা করে রয়েছেন।

Related Articles

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।