বাংলা সিরিয়াল

লালনের মৃত্যুর খবর নিয়ে আসলো পুলিশ, স্টার জলসার জনপ্রিয় ধারাবাহিক ‘ধুলোকণা’ তে আসলো নতুন টুইস্ট

জমে উঠছে স্টার জলসার জনপ্রিয় ধারাবাহিক ধুলোকণা, কিছুদিন আগেই সপরিবারে সমুদ্র সৈকতে বেড়াতে গিয়েছিলেন লালন ফুলঝুরি। কিন্তু সেখানে গিয়েও চড়ুইয়ের মায়ের ষড়যন্ত্রের শিকার হয় দুজনে লালন এবং ফুলঝুরির সুখের সংসার তছনছ করে দিতে নিজের পুরনো এক বন্ধুর সাথে ফন্দি আটে। এরপরেই ঘটে যায় সেই দুর্ঘটনা। সমুদ্রে ভেসে যায় লালন। তারপর থেকে লালন কে হন্যে হয় খুঁজতে থাকে পরিবারের সকলে। কিন্তু কোথাও খুঁজে পাই না। অবশেষে খবর দেওয়া হয় পুলিশকে।

এরপর ফুলঝুরিরা যেই হোটেলে আছে সেখানে আসে পুলিশ। পুলিশ এসে সকলকে জানাই যে সমুদ্রের পাড় থেকে পাওয়া গিয়েছে একজন ভদ্রলোকের ডেড বডি। কিন্তু সেই ডেড বলি একেবারেই চেনা যাচ্ছে না। কারণ তার মুখ একেবারে ক্ষতবিক্ষত হয়ে গিয়েছে। তাই বডি আইডিফাই করার জন্য পরিবারের লোককে যেতে হবে পুলিশের সাথে। কিন্তু ফুলঝুরি কিছুতেই পুলিশের কথা মেনে নিতে পারে না যে লালনের মৃত্যু হয়েছে। লালন আর তার কাছে নেই। তাই সে পুলিশের উপর বারবার চিৎকার করতে থাকে সকলকে জোরে জোরে চিৎকার করে বলে যে লালন তাকে ছেড়ে কখনোই যেতে পারে না। লালন ঠিক ফিরে আসবে তার কাছে। কিন্তু পুলিশ পরিবারের সকলকে জানাই অন্য কথা।

পুলিশ এসে জানায় পুলিশকে যে ছবিটা দেওয়া হয়েছিল লালনের সেই ছবি অনুযায়ী একই জামাকাপড় পড়ে আছে ওই ডেড বডির ওই ব্যক্তি। এরপরে এই কথা শুনেই মাথার উপর আকাশ ভেঙে পড়ে ফুলঝুরির। হাউমাউ করে কাঁদতে শুরু করে লালনের দিদিও। পুরো ব্যাপারটাই এখন ধোঁয়াশা সৃষ্টি করেছে। আদৌ কি লালন মারা গিয়েছে? নাকি দূরে কোথাও ভেসে গিয়েছে। সেই টুইস্ট আনা হলো ধারাবাহিকে। এবারে দেখার অপেক্ষা আগামী দিনে কি হতে চলেছে। লালন কে কি খুঁজে পাওয়া যায় নাকি অন্য টুইস্ট আসছে গল্পে।

Related Articles

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।