Viral

অপা দুর্নীতি কাণ্ডে মুখ খুললেন জুনিয়র পিসি সরকার! বললেন ‘এই নাকি বাঙালির অবস্থা, ছি ছি! বাংলায় আর জন্মগ্রহণ করতে চাই না’

চলতি বছরের বেশ কয়েক মাস ধরেই রাজ্য রাজনীতির সরগরম চলছে প্রাক্তন শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় এবং তার ঘনিষ্ঠ বান্ধবী অর্পিতার এসএসসি দুর্নীতি কান্ডে। পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের কোটি কোটি টাকার দুর্নীতি, প্রচুর ফ্ল্যাট সেখান থেকে টাকা পাওয়া, গয়না, সোনা, সোনার কলম, অ্যাডাল্ট টয় এইসব জিনিস ফাঁস হয়ে যাওয়ায় বাংলার মাথা নিচু হয়েছে দেশের সামনে। এইসব ঘটনায় এবার অকপটে মুখ খুলেছেন জাদু সম্রাট পি সি সরকারের পুত্র পি সি সরকার জুনিয়র। জাদুকর বলেন এই বাংলায় তিনি জন্মগ্রহণ করতে চান না।

২০১৪ সালের পিসি সরকার জুনিয়র সম্পর্কে একটি মিথ্যে ঘটনার চার্জশিট আনতে তিনি গিয়েছিলেন বারাসাত আদালতে। গত বুধবার বারাসাত আদালতে উপস্থিত থাকায় তাকে পার্থক কাণ্ডে প্রশ্ন করলে মুখ খোলেন জাদুকর। তাসি বক্তব্যে তিনি বাংলার সম্পর্কে খুব দুঃখ অভিমান উগরে দিয়েছেন।

জাদু সম্রাট পুত্র জুনিয়র পিসি সরকার স্পষ্ট বলেন, এই ধরনের মানুষ যদি বাংলায় থেকে থাকেন তাহলে তিনি আর এ বাংলায় জন্ম নিতে চান না। বরং তিনি ঈশ্বরের কাছে প্রার্থনা করবেন ঈশ্বর তাকে যা শাস্তি দেওয়ার দিন কিন্তু বাংলায় যেন আর না পাঠান। বিভিন্ন বিশিষ্ট সংবাদমাধ্যমকে জাদুকর জানান তিনি রীতিমত লজ্জিত, কুণ্ঠিত।

জাদু সম্রাট বলেন তিনি এতই লজ্জিত যে বাংলার বাইরে পর্যন্ত তিনি বেরোচ্ছেন না। “এই অবস্থা বাঙালির! যে চেয়ারে সুভাষচন্দ্র বসু বসেছেন, চিত্তরঞ্জন বোস বসেছেন, ক্ষুদীরাম ফাঁসিতে ঝুলেছেন, বিনয় বাদল দীনেশ শহিদ হয়েছেন এদের জন্য? ছিছিক্কার করে জাদুসম্রাট বলেন, ওই মহান মানুষদের নাম ভাঙিয়ে তাঁদের অপমান করা হচ্ছে। বাঙালির রক্তকে অপমান করা হচ্ছে”।

প্রসঙ্গত জাদুকর নিজেও রাজনীতির দুনিয়ায় পা রেখেছিলেন বিজেপির হাত ধরে। কিন্তু রাজনীতির মঞ্চে ইন্দ্রজাল বিস্তার করা সম্ভব হয়নি জাদু সম্রাটের পক্ষে। আজ থেকে আট বছর আগে ২০১৪ সালে লোকসভা নির্বাচনে তৃণমূল প্রার্থী কাকলি ঘোষ দোস্তিদারের বিপরীতে বিজেপি প্রার্থী হয়ে দাঁড়িয়েছিলেন জাদু সম্রাট। কিন্তু রাজনীতির মঞ্চে হয়নি তার জয়জয়কার। কিন্তু এতে যাতে সম্রাট জানিয়েছিলেন মানুষ তাকে চাইনি, তার থেকে ভালো প্রার্থী মানুষ পেয়েছেন। তাই এ বিষয়ে আর কোন বক্তব্য রাখেন না জাদু সম্রাট।

Related Articles

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।