টলিউড

জিৎ প্রিয়াঙ্কার সাথী ছবিটি এক সময় বক্স অফিস কাঁপিয়েছিল, কত টাকার ব্যবসা চলেছিল? রইল সেই অজানা তথ্য

টলিউডের সুপারস্টার জিতকে আমরা সকলেই এক নামে চিনি। জিতের সিনেমা মানেই সেটি জনপ্রিয়তা পাবেই। এই অবাঙালি হিরোর ক্যারিয়ার জীবন অতিবাহিত হয় সাথী ছবির মধ্যে দিয়ে। এই ছবিটি মুক্তি পায় ২০০২ সালের ১৪ ই জুন।

এই ছবির মাধ্যমেই দর্শকরা পায় তাদের প্রিয় অভিনেতা জিতকে। নায়িকার ভূমিকায় দেখা যায় প্রিয়াঙ্কা ত্রিবেদীকে। সাথী ছবির পরিচালক হরনাথ চক্রবর্তী প্রথমে সাথী ছবির বিজয় চরিত্রে অভিনয়ের জন্য গিয়েছিলেন প্রসেনজিৎ চট্টোপাধ্যায়ের কাছে। কিন্তু প্রসেনজিৎ চট্টোপাধ্যায় পাঠ করতে রাজি হননি। তারপর কাজের অফার যায় জিতের কাছে। জিৎ সাথে সাথেই রাজি হয়ে যান। এই সিনেমাটি করার পর জিৎ কে তার ক্যারিয়ারের দিকে ফিরে তাকাতে হয়নি।

এই সিনেমার বিষয়বস্তুটি দর্শকদের মন ছুঁয়ে গিয়েছিল। অভিনেতা হিসেবে জীৎও মানুষের মনে স্থান করে নেয় এই ছবির মধ্যে দিয়ে। তখনকার দিনে কিন্তু ছিল না ওটিপি প্ল্যাটফর্ম, ছিলনা সোশ্যাল মিডিয়ার ব্যবহার। কিন্তু তা সত্ত্বেও ওই ছবির গান ও বন্ধু তুমি শুনতে কি পাও লোকের মুখে মুখে চলেছিল। এত বছর পর গানটি আজও সেই জনপ্রিয় রয়ে গেছে।

সেইসময় সাথী ছবিটি বক্স অফিসে দারুন সাফল্য লাভ করে। এই ছবি বক্স অফিসে ১০ কোটি টাকার ব্যবসা করেছিল। এই ছবির জন্য ২০ লক্ষ টাকা খরচ করেছিলেন পরিচালক। ২৮ টা হলে এই ছবি ৩ টে করে শো পেয়েছিল। প্রায় ২৫ সপ্তাহ ধরে হলে চলেছিল ছবিটি। প্রায় প্রতিটি দিনেই হাউসফুল হয়ে যায়। এখন ২০ বছরে পর্দাপন করল ছবিটি। সাথীর বর্ষপূর্তি উপলক্ষে অভিনেতা জিৎ বলেছেন ‘যারা এই ছবির সঙ্গে জড়িয়ে ছিলেন তাদের সকলকে ধন্যবাদ। সবশেষে ধন্যবাদ দেব দর্শককে। তাঁরা এই ছবি দেখেছিলেন, এই ছবির গান শুনেছিলেন। সবসময় দর্শককে পাশে পেয়েছি। এরপর থেকেই আমার দায়িত্ব অনেক বেড়ে গেছে । আপনাদের মনোরঞ্জন করার দায়িত্ব। আপনাদের সাপোর্ট আমাকে আরও উৎসাহিত করে’।

Related Articles

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।